আগেভাগেই কোরবানির রশি কিনে রেখেছেন ফিরোজ সাহেব।

ফ্রিল্যান্স প্রতিবেদক

ঈদ আসতে এখনো বাকি অনেক মাস। এর মাঝেই স্বভাবসূলভ দূরদর্শিতার পরিচয় দিয়ে এক অভিনব দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ফিরোজ সাহেব। ‘এতগুলো রশি দিয়ে কী করবেন?’ এই প্রশ্নের উত্তরে প্রথমে তিনি সবজান্তা ভঙ্গিতে হাসলেন। তারপর বললেন, ‘কোরবানির সময় রশির সংকট দেখা দিতে পারে। সেই ভাবনা থেকেই সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হিসেবে এই রশি ক্রয়ের সিদ্ধান্ত নেয়া।’ আগেভাগে কিনে ফেলায় দামেও বেশ সাশ্রয় করতে পেরেছেন বলে মনে করছেন ফিরোজ সাহেব।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ব্যক্তি এ ব্যাপারে মন্তব্য করেছেন যে, রশি নিয়ে এখনই তিনি এতো উদ্বিগ্ন হতে রাজি নন। এই সিদ্ধান্ত উনি নিতে চান বুঝেশুনে।

admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *